দেশের মানুষকে কিভাবে ভালোবাসতে হয় বাবার কাছে শিখেছি : ইশরাক

ইঞ্জিনিয়ার ইশরাক হোসেন বলেছেন, দেশ ও দেশের মানুষকে কিভাবে ভালোবাসতে হয় তা আমি আমার বাবার কাছে শিখেছি।

শনিবার (১২ ডিসেম্বর) বাদ আসর সিরাজদিখান উপজেলার সৈয়দপুরে অবিভক্ত ঢাকার সাবেক মেয়র খোকার রুহের মাগফিরাত কামনায় মিলাদ ও দুআ অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন।

তিনি আরও বলেন, আজকে মিলাদের এ আয়োজনে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলসহ এলাকার সাধারণ মানুষ অংশ নিয়েছেন। এতেই প্রমাণ হয়, আমার বাবাকে আপনারা মন থেকে ভালোবাসেন। আমি আমার বাবা ও চাচার রুহের মাগফিরাত কামনায় আপনাদের কাছে দুআ চাই।

মিলাদ মাহফিলে উপস্থিত ছিলেন বিএনপির কেন্দ্রীয় সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেটড আব্দুস সালাম, সমাজ কল্যাণ সম্পাদক কামরুজ্জামান রতন, স্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক সরাফত আলী সপু, সিরাজদিখান থানা বিএনপির সভাপতি আব্দুল কুদ্দুস ধীরন,

সাধারণ সম্পাদক আওলাদ হোসেন মোল্লা, সাবেক সাধারণ সম্পাদক জসিম উদ্দিন খান খোকন, কেন্দ্রীয় যুবদলের সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক সোহেল আহমেদ, জেলা যুবদলের সভাপতি সুলতান আহমেদ, জেলা ছাত্রদলের সভাপতি মোজাম্মল হক মুন্না, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি ইদ্রিছ মিয়াজী ভিপি মোহন, সাধারণ সম্পাদক ছিদ্দিক মোল্লা, রাজানগর ইউনিয়ন বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ওমর ফারুখ রিগ্যান প্রমুখ।

উল্লেখ্য, ২০১৯ সালের ৪ নভেম্বর ঢাকা সিটি করপোরেশনের মেয়র ও সাবেক মন্ত্রী সাদেক খোকা আমেরিকার নিউ ইয়র্কে মৃত্যুবরণ করেন।

ঝরে গেলো আরেক নক্ষত্র হেফজত মহাসচিব আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমী

বাংলাদেশ কওমি মাদরাসা শিক্ষা বোর্ড বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়া বাংলাদেশের সিনিয়র সহ-সভাপতি, হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের মহাসচিব,

জামিয়া মাদানিয়া বারিধারা মাদরাসার মহাপরিচালক আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমী আর নেই। ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন।

তার মৃত্যুর বিষয়টি আওয়ার ইসলামকে নিশ্চিত করেছেন তার ছেলে মাওলানা জাবের কাসেমী। আল্লামা কাসেমী আজ (১৩ ডিসেম্বর) বেলা ১ টার দিকে রাজধানীর ইউনাইটেড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।

উল্লেখ্য, আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমী গত ১ ডিসেম্বর ঠাণ্ডাজনিত কারণে হঠাৎ গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েলে তাকে রাজধানীর ইউনাইটেড হাসপাতাল ভর্তি করানো হয়। সন্দেহ থেকে পরীক্ষা করানো হয় করোনা। তবে কয়েক দফা পরীক্ষা করে তার করোনা নেগেটিভ আসে।

এদিকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গত বৃহস্পতিবার দুপুরে অক্সিজেনের মাত্রা ও রক্তচাপ কমে যাওয়ায় তাকে প্রথমে হাই ডিপেন্ডসি ইউনিটে (এইচডিইউ) নেয়া হয়। পরে অবস্থার আরো অবনতি হলে রাত ৮টায় ইনটেনসিভ কেয়ার ইউনিটে (আইসিইউ) স্থানান্তর করা হয়।

পরে (১১ ডিসেম্বর) শুক্রবার সকালে অক্সিজেনের মাত্রা অনেকটা স্বাভাবিক হয়ে আসে। রক্তচাপ ও হৃৎস্পন্দনও স্বাভাবিক হয়। কিন্তু দুপুরের পর তার শারীরিক অবস্থার আবার অবনতি ঘটে। এবং আজ দুপুর ১টার দিকে তার মৃত্যু হয়।

জানুয়ারিতে চালু হচ্ছে মিজানুর রহমান আজহারীর ইউটিউব চ্যানেল

জানুয়ারিতে চালু হচ্ছে ইসলামী বক্তা মিজানুর রহমান আজহারীর ইউটিউব চ্যানেল।

তার চ্যানেল চালুর ব্যপারে তিনি তার ফেসবুক পেজে একটি স্ট্যাটাস দিয়েছেন। নিচে তা হবহু তুলে দেওয়া হলোঃ

ফেসবুক থেকে নেয়াঃ আলহামদুলিল্লাহ.. অফিসিয়াল ইউটিউব চ্যানেল সংক্রান্ত আমার গত স্ট্যাটাসটিতে ষাট হাজারেরও বেশী কমেন্টস এসেছে। আমি উল্লেখযোগ্য প্রায় সবগুলো কমেন্টসই পড়ার চেষ্টা করেছি। সুবহান আল্লাহ!

আপনাদের চমৎকার ও কন্স্ট্রাক্টিভ পরামর্শগুলো আমায় আবেগাপ্লুত করেছে। অসাধারণ এই পরামর্শগুলোর জন্য আন্তরিক শুকরিয়া। আল্লাহ তায়ালা আপনাদের সবাইকে উত্তম বিনিময় দিন। আপনাদের দেয়া সুন্দর পরামর্শগুলো আমরা মাথায় রাখার চেষ্টা করব ইনশাআল্লাহ।

আসন্ন চ্যানেলটির ব্যাপারে ইতিমধ্যে যে সকল সিদ্ধান্ত নিয়েছি:

১- সম্ভাব্য “Mizanur Rahman Azhari-Official” নামে চ্যানেলটি যাত্রা শুরু করবে। চ্যানেলটি ক্রিয়েট করার পর, চ্যানেলটির প্রকৃত নাম এবং চ্যানেলটির লিংক শীঘ্রই আপনাদেরকে জানানো হবে।

২- চ্যানেলটিতে মনিটাইজেশন করা হবে না এবং এডস্যান্স থাকবে না। ফলে আলোচনার মাঝখানে কোন এড শো করবে না, যা কিনা বিরক্তির এবং শ্রোতাদের মনোযোগ নষ্ট করে।

৩- চ্যানেলটি নিছক দা’ওয়াহ কার্যক্রম পরিচালনায় ব্যবহৃত হবে।

৪- জানুয়ারি থেকে কিছু বিষয়ভিত্তিক আলোচনা ও প্রশ্নোত্তর দিয়ে পরীক্ষামূলক সম্প্রচার শুরু হবে। ফেব্রুয়ারি থেকে ধারাবাহিক সিরিজ গুলো আমরা শুরু করবো বলে আশা রাখছি।

৫- ইউটিউবার ভাইয়েরা যারা মাহফিলের রেকর্ডিং করে থাকেন, তাদের কেউ কেউ ম্যাসেজ করে জানতে চেয়েছেন যে— “তাহলে এখন থেকে আমরা কি দেশে আপনার কোন আলোচনা রেকর্ডিং এর সুযোগ পাব না”?

ইনশাআল্লাহ, মহান আল্লাহ তায়ালা তাঁর এই নগন্য গোলামকে দেশে এসে আবার কথা বলার সুযোগ করে দিলে, আপনারাও রেকর্ডিং এর সুযোগ পাবেন। তবে সেটা অবশ্যই নিয়ম মেনে, প্রফেশনাল ম্যানারে এবং দা’ওয়াহ উদ্দেশ্যে যারা কাজ করবেন শুধু তারাই।

আর, বারবার সতর্কতা প্রদানের পরও বিভিন্ন অশ্লীল, অশালীন, সামঞ্জস্যহীন এবং মানহীন থাম্বনেইল দিয়ে ভিডিও আপলোড করে, দ্বীন প্রচারের এই উর্বর ময়দানটিকে যারা কলুষিত করছেন তাদেরকে শুধু একটি কথাই বলব— ক্ষণস্থায়ী দুনিয়া কামাতে গিয়ে চিরস্থায়ী আখিরাত বর্বাদ করবেন না।

আল্লাহ তায়ালা আমাদের সবাইকে তাঁর সন্তুষ্টির পথে পরিচালিত করুন। আমিন।

Let’s work for Islam in a professional manner.